ঢাকা শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ৯ মাঘ ১৪২৭

সাতক্ষীরায় করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে স্বাস্থ্যকর্মীসহ ২ জনের মৃত্যু

কান্ট্রি ডেস্ক
০৩ জানুয়ারি ২০২১ ১৮:১৫
আপডেট: ২০ জানুয়ারি ২০২১ ০১:৪৯
সাতক্ষীরায় করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে স্বাস্থ্যকর্মীসহ ২ জনের মৃত্যু প্রতিকী

করোনা আক্রান্ত হয়ে ও উপসর্গ নিয়ে সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ (সামেক) হাসপাতালে একজন স্বাস্থ্যকর্মীসহ দুই জনের মৃত্যু হয়েছে। রোববার সকালে ও দুপুরে সামেক হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে (আইসিইউ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় তারা মারা যান। করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া ব্যক্তির নাম সুব্রত কুমার মন্ডল (৬০)। তিনি সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলার বুধহাটা ইউনিয়নের পাইথালী গ্রামের মৃত মেঘনাথ মন্ডলের ছেলে। করোনা উপসর্গে মৃত ব্যক্তি হলেন কলারোয়া উপজেলার শ্রীপতিপুর গ্রামের মৃত রজব আলীর ছেলে স্বাস্থ্যকর্মী মফিজুল ইসলাম (৫০)।

মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, জ্বর, সর্দি, কাশি ও শ্বাসকষ্টসহ কোভিড-১৯ উপসর্গ নিয়ে গত ২৭ ডিসেম্বর সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে (আইসিইউ) ভর্তি হন কলারোয়ার শ্রীপতিপুর গ্রামের স্বাস্থ্যকর্মী মফিজুল ইসলাম (৫০)। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে তিনি মারা যান। হাসপাতালে ভর্তির পর তার নমুনা সংগ্রহ করে খুমেক হাসপাতালের আরটি পিসিআর ল্যাবে পাঠানো হলেও এখনও পর্যন্ত তার রিপোর্ট পাওয়া যায়নি।

এদিকে করোনা আক্রান্ত হয়ে গত ১৯ ডিসেম্বর সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা ইউনিটে ভর্তি হন আশাশুনির পাইথালী গ্রামের সুব্রত মন্ডল। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার দুপুর সাড়ে ১২ টার দিকে তিনি মারা যান। এ নিয়ে সাতক্ষীরায় করোনা উপসর্গ নিয়ে ৩ জানুয়ারি পর্যন্ত মারা গেছেন ১২৭ জন। আর আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৩২ জন।

সাতক্ষীরা সিভিল সার্জন ডাঃ হুসাইন শাফায়াত বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, স্বাস্থ্য বিধি মেনে তাদের দু’জনের লাশ দাফনের অনুমতি দেওয়া হয়েছে।